Amardesh
আজঃ
 
 সাপ্তাহিকী
 
আবহাওয়া
 
 
আর্কাইভ: --
 

বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে তর্ক-বিতর্ক দেখতে চাই না : আশরাফ

ডেস্ক রিপোর্ট
« আগের সংবাদ
পরের সংবাদ»
বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে নিয়ে তর্ক-বিতর্ক দেখতে চান না আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম। তিনি বলেন, ‘আমরা দেশে বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে তর্ক-বিতর্ক দেখতে চাই না। আমরা চাই, যিনি যেই সম্মানের প্রাপ্য, তিনি সেই সম্মানের প্রাপ্য হোক।’
রাজধানীর সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে মঙ্গলবার বিকেলে ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশন আয়োজিত বঙ্গবন্ধুর ৪০তম শাহাদাত বার্ষিকীর আলোচনা সভায় প্রধান বক্তার বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।
সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম বলেন, ‘যারা বঙ্গবন্ধুকে নিশ্চিহ্ন করার জন্য তাকে হত্যা করেছিল, তারা কিন্তু সফল হয় নাই। তাদের উদ্দেশ্য ছিল বঙ্গবন্ধুকে শুধু খুন করা নয়, তার অবদানকে ধ্বংস করা।’
জনপ্রশাসন মন্ত্রী সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম বলেন, ‘আমাদের একজন সাবেক বিরোধী দলীয় নেত্রী আছেন, যার জম্মদিন ১৫ আগস্ট না, তারপরও তিনি ১৫ আগস্ট জম্মদিন পালন করেন। আমরা জাতিকে ঐক্যবদ্ধ করতে চাই। আমরা চাই সার্বজনীনভাবে বঙ্গবন্ধুর মৃত্যুদিন পালন করা হোক। আমরা দেশটাকে এগিয়ে নিতে চাই।’
তিনি আরো বলেন, ‘আমরা গতবারও খালেদা জিয়ার প্রতি মিডিয়ার মাধ্যমে আহ্বান করেছিলাম ১৫ আগস্ট যদি জম্মদিন হয়েও থাকে, তারপরও ১৫ আগস্ট পালন না করে, একদিন পর ১৬ তারিখ পালন করতে। কিন্তু তিনি ইচ্ছাকৃতভাবে ১৫ আগস্ট জম্মদিন পালন করেন। এভাবে দেশ চলতে পারে না। এবারও আমরা মিডিয়ার মাধ্যমে আহ্বান করেছি ১৫ আগস্ট জাতীয় শোক দিবসকে সার্বজনীনভাবে পালন করার জন্য। কারণ আমরা বাংলাদেশে বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে তর্ক-বিতর্ক দেখতে চাই না।’
ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের পক্ষে শোক দিবসে আলোচনা সভা করার উদ্যোগ গ্রহণের জন্য মেয়র সাঈদ খোকনকে ধন্যবাদ জানিয়ে সৈয়দ আশরাফ বলেন, ‘কিছুক্ষণ আগে আমি মেয়রকে জিজ্ঞেস করেছিলাম, এর আগে কি ঢাকা সিটি করপোরেশনের পক্ষ থেকে জাতীয় শোক দিবসে আলোচনা সভা করা হয়েছিল? মেয়র বলল, না, এবারই প্রথম।’
নতুন এই উদ্যোগের সূচনা করার জন্য মেয়রকে ধন্যবাদ জানান তিনি।
মেয়র সাঈদ খোকনের সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখেন আওয়ামী লীগের উপদেষ্টামণ্ডলীর সদস্য ও শিল্পমন্ত্রী আমির হোসেন আমু, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব উল আলম হানিফ, সাংগঠনিক সম্পাদক আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাসিম, কৃষি ও সমবায় সম্পাদক ড. আব্দুর রাজ্জাক, দফতর সম্পাদক ড. আবদুস সোবহান গোলাপ, মহিলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আশরাফুন্নেছা মোশাররফ, ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের মেয়র আনিসুল হক, ঢাকা মহানগর আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি এম এ আজিজ, ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক ও খাদ্যমন্ত্রী কামরুল ইসলাম, ফজলে নূর তাপস প্রমুখ।